জেনে নিন বাবার সম্পত্তিতে মেয়েদের কতটা অধিকার রয়েছে ?

মঙ্গলবার মহিলাদের পক্ষে বড় রায় দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট ৷ এবার থেকে বাবার সম্পত্তিতে মেয়েদেরও পৈতৃকও অধিকার থাকবে ৷ ২০০৫ সালে এই নিয়ম তৈরি করা হয়েছিল যে ছেলে ও মেয়ের দু’জনের বাবার সম্পত্তিতে সমান অধিকার থাকবে ৷

২০০৫ সালে হিন্দু উত্তরাধিকার আইন ১৯৫৬-এ সংশোধন করা হয়েছিল ৷ এখানে পৈতৃক সম্পত্তিতে মেয়েদের সমান অধিকার বিষয়ে বলা হয়েছিল ৷ Legal heir হওয়ার কারণে সম্পত্তিতে ছেলেদের যতটা অধিকার মেয়েদেরও ঠিক ততটাই অধিকার ৷ বিয়ের সঙ্গে এর কোনও যোগসূত্র নেই ৷ বিয়ে হয়ে গেলেও মেয়েরা তাদের সম্পত্তির উপর দাবি করতে পারে ৷

হিন্দু আইন অনুযায়ী, সম্পত্তি দু’ধরনের হয়ে থাকে ৷ একটি যেটা বাবা কিনেছেন ৷ আর দ্বিতীয় যেটি পৈতৃক সম্পত্তি, যা গত চার পুরুষ পেয়ে এসেছে ৷ আইন অনুযায়ী, মেয়ে হোক বা ছেলে এই সম্পত্তিতে জন্ম থেকে দু’জনের সমান অধিকার রয়েছে ৷ অর্থাৎ কেবল একজনের নামে উইল করতে পারবেন না ৷ এবার কোনও ভাবেই মেয়েদেরকে তাদের সম্পত্তির ভাগ থেকে বঞ্চিত করা যাবে না ৷ জন্ম থেকে পৈতৃক সম্পত্তিতে মেয়েদেরও সমান অধিকার রয়েছে ৷

বাবার কেনা সম্পত্তিতে মেয়েদের কী অধিকার- বাবা যদি নিজে কোনও সম্পত্তি কিনে থাকেন তাহলে তিনি সেটা নিজের ইচ্ছেয় যে কারোর নামে গিফ্ট করতে পারেন ৷ সে ক্ষেত্রে মেয়েরা আপত্তি জানাতে পারবেন না ৷

কিন্তু যদি বাবার মৃত্যু হয়ে যায় এবং তিনি উইল না করে যান তাহলে সেক্ষেত্রে উত্তরাধিকাররা সবাই সমান ভাগ পাবেন ৷

মেয়ের জন্ম ৯ সেপ্টেম্বর ২০০৫ এর আগে বা পড়ে হলেও বাবার সম্পত্তিতে ছেলের সমান ভাগ পাবেন ৷ ২০০৫-এর সংশোধনীর আগে মা-বাবার মৃত্যু হলেও মেয়েরা সমান অধিকারী সম্পত্তির ৷ হিন্দু উত্তরাধিকার আইনে ২০০৫ সালে সংশোধন করা হয়৷ সংশোধনীতে বলা হয়, মা-বাবার সম্পত্তিতে মেয়েদের সমান অধিকার থাকবে৷ এ দিন শীর্ষ আদালতের বিচারপতি অরুণ মিশ্রের নেতৃত্বে তিন সদস্যের বেঞ্চ জানায়, আইনে ওই সংশোধনী লাগু হওয়ার আগেও মা-বাবা যদি মারা যান, তাতেও পৈতৃক সম্পত্তিতে মেয়েদের সমান অধিকার রয়েছে৷

আরও পড়ুন : ৪০০ টাকা থেকে ১২০০টাকা, ইলিশ কিনতে মানুষের ঢল বাজারে

[যদি প্রতিবেদনটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে শেয়ার কমেন্ট ও লাইক করতে ভুলবেন না]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *