প্রয়াত বলিউড অভিনেতা ইরফান খান

চলে গেলেন ইরফান খান। মুম্বইয়ের কোকিলাবেন ধীরুভাই হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন বলিউডের এই জনপ্রিয় অভিনেতা। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৪ বছর। ইরফান খানের মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

লকডাউনের মধ্যে মঙ্গলবার আচমকাই অসুস্থ হয়ে পড়েন ইরফান খান। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে মুম্বইয়ের ধীরুভাই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে আইসিইউতে চলছিল তাঁর চিকিতসা। তবে চিকিতসার মাঝেই ছড়িয়ে পড়ে পিকু অভিনেতার মৃত্যুর গুঞ্জন। যদিও গুঞ্জনকে নস্যাত করে দেন বলিউড অভিনেতার মুখপাত্র। 

তিনি স্পষ্ট জানান, কোলন ইনফেকশন নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে ইরফানকে। তাঁর শরীরের দিকে নজর রাখছেন চিকিতসকরা। অসুস্থতার মধ্যেও অসম্ভব মনের জোর অভিনেতার। ফলে শিগগিরই তিনি সুস্থ হয়ে উঠবেন বলে আশা প্রকাশ করেন অভিনেতার মুখপাত্র। কিন্তু শেষ পর্যন্ত লড়াই থেমে যায়। প্রয়াত হন বলিউডের এই বর্ষীয়ান অভিনেতা।

২০১৮ সালে প্রথমবার ধরা পড়ে তাঁর নিউরোঅন্ডোক্রাইন টিউমার। অসুস্থতা ধরা পড়ার পরই তাঁকে লন্ডনে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই চলছিল তাঁর চিকিতসা। ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারি এবং পরে সেপ্টেম্বরে লন্ডন থেকে দেশে ফেরেন ইরফান। এরপরই মুক্তি পায় তাঁর ছবি আংরেজি মিডিয়াম। তবে আংরেজি মিডিয়াম মুক্তির পর আর স্থায়ী হল না তাঁর বলিউডের দৌড়। লকডাউনের মধ্যেই চলে গেলেন বলিউডের এই বর্ষীয়ান অভিনেতা।

আরও পড়ুন: গতবছর ক্যান্সারকে হারিয়েছে, এবার করোনাকেও জিতে ফিরল ৪ বছরের খুদে

[যদি প্রতিবেদনটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে শেয়ার কমেন্ট ও লাইক করতে ভুলবেন না।]


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *