সুশান্তের আত্মহত্যার পর তাঁর ফ্ল্যাটে চলছিল রান্না,চাঞ্চল্যকর দাবি

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর মামলায় পরপর সামনে আসছে বিস্ফোরক তথ্য। ১৪ জুন সুশান্তের মৃত্যুর পর তাঁর ব্যান্দ্রার ফ্ল্যাটে কী হচ্ছিল, এবার সেই চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে আনল এসএসআর-এর পরিবার।

রিপোর্টে প্রকাশ, ১৪ জুন সুশান্তের মৃত্যুর খবর পেয়ে তাঁর পরিবারের বেশ কয়েকজন (যে দুই দিদি এবং তাঁদের পরিবার মুম্বইতে থাকেন, তাঁরা হাজির হন ১১.৩০ নাগাদ) অভিনেতার ব্যান্দ্রার ফ্ল্যাটে হাজির হন। সেখানে গিয়ে দেখা যায়, সুশান্তের ফ্ল্যাটের রান্নাঘরে রান্নাবান্না চলছে। অভিনেতার মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই তাঁর ফ্ল্যাটে অন্য যাঁরা থাকতেন, তাঁরা রান্না বসিয়ে দেন। এমনকী, তাঁদের দেখে বোঝার কোনও উপায় ছিল না যে সেখানে কিছু হয়েছে। সুশান্তের মৃত্যু নিয়ে তাঁদের যেন কোনও হেলদোল ছিল না বলেও অভিযোগ করে প্রয়াত অভিনেতার পরিবার। তাঁরা যেন বিষয়টিকে পাত্তাই দেননি ওইদিন। সুশান্তের মৃত্যুর পর নির্বিকার চিত্তে সেদিন তাঁর রান্নাঘর রান্না চলছিল বলে দাবি করে রাজপুত পরিবার।

প্রসঙ্গত, সুশান্তের ফ্ল্যাটে নীরজ সিং, দীপেশ সাওয়ান্ত এবং সিদ্ধার্থ পিটানি ১৪ জুন হাজির ছিলেন বলে জানা যায়। ওইদিন সকাল থেকে সুশান্তের ঘর থেকে আওয়াজ না পেয়ে, নীরজ এবং দীপেশ নামের দুই পরিচারক নীচের তলায় সিদ্ধার্থ পিটানিকে খবর দেন। সিদ্ধার্থ হাজির হয়ে  চাবিওয়ালাকে খবর দেন। এরপর সেই চাবিওয়ালাই সুশান্তের ঘরের তালা ভাঙেন বলে জানা যায়। যদিও সিবিআইয়ের জিজ্ঞাসাবাদের নীরজ, দীপেশ এবং সিদ্ধার্থ পিটানির বয়ানে গরমিল রয়েছে বলে খবর।

আরও পড়ুন:তালা ভাঙার পর সুশান্তকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখিনি, ওরা চলে যেতে বলে’

[যদি প্রতিবেদনটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে শেয়ার কমেন্ট ও লাইক করতে ভুলবেন না।]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *